শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৫৬ পূর্বাহ্ন

খুলনায় পোস্টার লাগানোকে কেন্দ্র করে ২৫ জনকে কুপিয়ে জখম ও ঘর বাড়ী ভাংচুর
ফয়সাল ইকবল
Update : শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১

সত্যখবর ডেস্ক ।। ২৭ মার্চ ২০২১

খুলনার পাইকগাছায় পোস্টার লাগানোকে কেন্দ্র করে নৌকা প্রতিকের চেয়ারম্যান প্রার্থীর নেতৃত্বে বর্তমান চেয়ারম্যানসহ প্রায় ২৫জনকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করা হয়েছে। ভাংচুর করা হয়েছে বাড়ী, ঘর ও মটরসাইকেল। আহতদের হাসপাতালে নিতে পথে পথে বাঁধা প্রদানেরও অভিযোগ রয়েছে। অবশেষে পুলিশ প্রহরায় গুরুতর আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে তথ্য সংগ্রহে গেলে হাসপাতালে দু’জন সাংবাদিককে লাঞ্চিত করে মোবাইল কেড়ে নেয়ার ঘটনা ঘটেছে।জানা যায়, শনিবার সকালে

বর্তমান চেয়ারম্যান ও স্বতন্ত্র চেয়ারম্যানপ্রার্থী এসএম এনামুল হকের পোস্টার লাগাতে গেলে নৌকা প্রতিকের কর্মী-সমর্থকরা তাতে বাঁধা প্রদান করেন। এ সময় পোস্টার কেড়ে নিয়ে ছিঁড়ে ফেললে বিষয়টি প্রতিপক্ষ প্রার্থী এনামুলকে জানালে তিনি তার কয়েকজন কর্মী নিয়ে ঘটনাস্থলে যায়। নৌকা প্রতিকের প্রার্থীরা এ সময় অতর্কিতভাবে তাদেরকে ধাওয়া করলে সোলাদানার বেতবুনিয়া গ্রামের লাভলু গাজী ও তার বোন মনিরার বাড়ীতে আশ্রয় নেয়। তখন নৌকা প্রতিকের চেয়ারম্যানপ্রার্থী আব্দুল মান্নান গাজী, রবি গাজী, আবু

সাইদ কালাইয়ের নেতৃত্বে তিন-চারশ লোক লাভলু ও মনিরার বাড়ী-ঘর ভাংচুর করে চেয়ারম্যান এনামুল, কিশোর কুমার মন্ডল, মুজিবুর রহমানকে এলোপাতাড়ী কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। চেয়ারম্যান এনামুলের কর্মী-সমর্থকরা এগিয়ে আসলে তাদেরকেও পিটিয়ে আহত করে বলে আহত শামীম, মুজিবরসহ অনেকেই জানান। চেয়ারম্যান এনামুল হক, শামীম ও কিশোরের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসকরা খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ

করেছে।অবস্থা মারাত্মক আকার ধারণ করলে পুলিশ ১০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে অবস্থা নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে বলে থানা পুলিশ জানিয়েছে। আহতদের পাইকগাছা হাসপাতালে আনার সময় পথে পথে বাঁধা দেয়া হয়। অবশেষে পুলিশ প্রহরায় তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।এদিকে জয়যাত্রা টেলিভিশনের উপজেলা প্রতিনিধি আসাদুল ইসলাম আসাদ ও দৃষ্টিপাত পত্রিকার পাইকগাছা প্রতিনিধি ফসিয়ার রহমান হাসপাতালে আহতদের তথ্য সংগ্রহে

গেলে তাদেরকে লাঞ্চিত করে মোবাইল কেড়ে নেয় বলে তারা জানায়।নৌকার প্রার্থী মান্নান গাজী জানান, চেয়ারম্যান মুখ খারাপ করায় স্থানীয় লোকেরা তাকে চারিদিক থেকে ঘিরে মারপিট করে।ওসি এজাজ শফী জানান, ১০ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে এবং স্থানীয় হাফিজুর রহমান, রফিক ও অহেদ আলীকে আটক করা হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
জনপ্রিয়
সর্বশেষ সংবাদ
copyright protected
%d bloggers like this: